টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট, বাংলাদেশের জন্য অস্ট্রেলিয়ার প্রস্তাব

0

এফএনএস স্পোর্টস: পূর্ণাঙ্গ সিরিজ বাতিল করার পর সেটি অন্যভাবে পুষিয়ে দিতে চায় অস্ট্রেলিয়া। ২০২০ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে বাংলাদেশকে একটি টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে অংশ নেওয়ার প্রস্তাব দিয়েছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া।

দুই টেস্ট ও তিন ওয়ানডের সিরিজ খেলতে আগামি অগাস্ট-সেপ্টেম্বরে অস্ট্রেলিয়া যাওয়ার কথা ছিল বাংলাদেশের। তবে সেই সিরিজ নিয়ে অনিশ্চয়তা ছিল বরাবরই। বুধবার আনুষ্ঠানিকভাবে জানিয়ে দেওয়া হয়, সফরটি হচ্ছে না। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া সিরিজ বাতিলের ঘোষণা দেওয়ার পরই বিসিবি জানিয়েছিল, বিকল্প নিয়ে কাজ করছে তারা। সেই বিকল্প ভাবনাটাও জানা গেল বৃহস্পতিবার।

সফরটি হতে পারে আগামি বছরের শেষ দিকে। তবে দ্বিপাক্ষিক সিরিজ নয়, হতে পারে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট। কিছু দিন আগে নিউ জিল্যান্ড ও ইংল্যান্ডকে নিয়ে ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলেছে অস্ট্রেলিয়া। সামনে একই রকম সিরিজ আছে পাকিস্তান ও জিম্বাবুয়েকে নিয়ে। ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজগুলোই এখন আর্থিকভাবে বেশি লাভজনক হচ্ছে বলে মনে করছে সিএ।

সিএ-এর এক মুখপাত্র বোর্ডের ওয়েবসাইটকে বলেন, “আইসিসির ভবিষ্যৎ সফরসূচিতে থাকা অগাস্টে বাংলাদেশের অস্ট্রেলিয়া সফরটি দুই বোর্ডের পারস্পরিক সমঝোতায় বাতিল করা হয়েছে। দুই বোর্ডই একমত হয়েছে যে বাতিল হওয়া সফরটি ভালোভাবে পুষিয়ে দেওয়া যায় অস্ট্রেলিয়ায় ২০২০ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে।”

তবে বিসিবি একমত হয়েছে বলে সিএ দাবি করলেও বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন চৌধুরী বললেন অন্য কথা।

“আমরা এখনও কোনো ফরমাল প্রস্তাব পাইনি ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার। ২০১৯ সালের এফটিপি নিয়ে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া কাজ করছে। যেটা হচ্ছে সেটা প্রক্রিয়াধীন। এই ধরনের ফরমাল কমিউনিকেশন হয়নি।”

পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে বাংলাদেশ একবারই অস্ট্রেলিয়ায় গিয়েছে, সেই ২০০৩ সালে। এরপর ২০০৮ সালে বাংলাদেশকে শুধু ওয়ানডে খেলতে ডেকেছিল অস্ট্রেলিয়া। এবার আইসিসির সফরসূচিতে থাকা সফর বাতিল হওয়ার পর অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে বাংলাদেশের টেস্ট খেলার সুযোগ আসতে পারে হয়তো কেবল আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ চালু হলেই।

Share.

Leave A Reply