কেমন আছেন মুজিব পরদেশী?

0

এফএনএস বিনোদন: আশির দশকে গান দিয়ে খ্যাতির শীর্ষে অবস্থান করেছেন মুজির পরদেশী। শহরে-নগরে, গ্রামে-গঞ্জে, পাড়া-মহল্লায়, আনাচে-কানাচে বেজেছে তার গান। আর এ গান ব্যবসায়িক দিক দিয়েও পেয়েছে ধারাবাহিক সফলতা। তার গাওয়া উল্লেখযোগ্য জনপ্রিয় গানের মধ্যে রয়েছে- কলমে নাই কালি, আমি বন্দী কারাগারে, তোমায় আমি হলেম অচেনা, আমার সাদা দিলে কাদা লাগাই গেলি রে বন্ধুয়া, আমি যার লাগি হইলাম অনুরাগী গো প্রাণসজনী, আমার জনম গেল কাঁদিতে, আমারে নি পড়ে তোমার মনে, আমার সোনা বন্ধুরে প্রভৃতি। বাংলাদেশের মুন্সীগঞ্জের টঙ্গীবাড়ি থানার বেতকা গ্রামে মুজিব পরদেশীর জন্ম। শৈশবেই সংগীতে তালিম নিয়েছেন ওস্তাদ গোলাম হায়দার আলী খান, ওস্তাদ ফজলুল হক, ওস্তাদ আমানুল্লাহর কাছে। তবলা শিখেছেন ওস্তাদ মনির হোসেন খান ও ওস্তাদ সাজ্জাদ হোসেন খানের কাছে। দীর্ঘদিন গান করেছেন লোকগীতির কিংবদন্তি শিল্পী আবদুল আলীমের সঙ্গে।

রেডিওতে একজন তবলা বাদক হিসেবেই তার পেশাগত জীবন শুরু হয়। এরপর রেডিও ও টিভিতে সুরকার হিসেবেও কাজ করেছেন। বরেণ্য সুরকার সংগীত পরিচালক সত্য সাহা, সুবল দাস, ধীর আলী, খন্দকার নূরুল আলমের সহকারী হিসেবে কাজ করেছেন। মুজিব পরদেশীর প্রথম এবং সবচেয়ে আলোচিত অ্যালবাম হচ্ছে ‘বন্দী কারাগারে’। এখন পর্যন্ত ৪২টি একক অ্যালবাম রয়েছে তার। তবে তারও আগে তিনি সংগীত পরিচালক হিসেবে কাজ করেন ‘অশান্ত ঢেউ’ চলচ্চিত্রে। এরপর প্রায় ২০টি চলচ্চিত্রের সংগীত পরিচালক হিসেবে কাজ করেন। গানের পাশাপাশি অভিনয়ও করেছেন। মুজিব পরদেশী মাঝে দীর্ঘ  সময় বিদেশে থাকলেও বর্তমানে দেশেই আছেন। সব মিলিয়ে কেমন আছেন এ শিল্পী? উত্তরে মুজিব পরদেশী বলেন, সবার দোয়ায় ভালো আছি। গান নিয়েই আছি। জনপ্রিয়তার শীর্ষে থাকা অবস্থায় আপনি আড়ালে চলে গিয়েছিলেন? সেটা কেন? উত্তরে এ শিল্পী বলেন, আসলে আমি বিভিন্ন দেশে গান করেছি। তবে লন্ডনে গিয়ে প্রবাসীদের ভালোবাসায় আমি আটকে গিয়েছিলাম। যদিও এ দেশের মতো ভালোবাসা আমি কোনো জায়গায় পাইনি। মাঝ্যেমধ্যে এ উপলব্ধিটি আমাকে কষ্টও দিয়েছে। সত্যি বলতে অর্থও দেশ ছাড়ার একটি কারণ ছিল। আমি লন্ডনে গান করার পাশাপাশি আর্থিকভাবেও ভালো ছিলাম। কিন্তু দেশে থাকা অবস্থায় সেটা ছিল না। অর্থসংকটে ছিলাম আমি। প্রবাসে থাকা অবস্থায় কি করেছেন? মুজিব পরদেশী বলেন, আমি গান ছাড়াতো কিছু করতে পারি না। সেখানেও গান করেছি। প্রায় এক যুগ আমি সেখানে ছিলাম। এ সময় আমি অনেক গান তৈরি করেছি। প্রবাসী কিছু শিল্পীর জন্যও কাজ করেছি। কিন্তু আপনি সে সময় যতটা জনপ্রিয় ছিলেন সেই অবস্থাটাতো এখন আর নেই, যেহেতু একটা বড় গ্যাপ পড়েছে? উত্তরে হেসে মুজিব পরদেশী বলেন, সেটা থাকার কথাও না। এটা জীবনের কঠিন সত্য। তবে বিষয়টি আমি মেনে নিয়েছি। আবার নতুন করে গান করবো। নতুন কোনো পরিকল্পনা আছে আপনার? এ শিল্পী বলেন, পরিকল্পনাতো অনেক আছে। এখন শো করছি নিয়মিত। চার বছর পর নতুন একক অ্যালবামের কাজ করছি। এটি হবে আমার ৪৩তম একক। মোট গান থাকবে ১০টি। আমার নিজের কথা, সুর ও সংগীতায়োজনেই কাজটি করছি। এ অ্যালবামের বাইরেও আরো কিছু গান করার ইচ্ছে আছে আমার। যদিও আগের মতো আর অবস্থা নেই। অনেক পরিবর্তন হয়েছে ইন্ডাস্ট্রির। ডিজিটালিও গান প্রকাশ হচ্ছে। আমি ঠিক করেছি অ্যালবামের পাশাপাশি ইউটিউবেও আমার গান প্রকাশ করবো।

Share.

Leave A Reply